ঘোষনা:
শিরোনাম :
নীলফামারীতে পানি উন্নয়ন বোর্ডের স্বেচ্ছাচারিতায় ১২১৭ একর জমির ফসল নষ্ট, এলাকাবাসীর মানববন্ধন। গাজীপুরের কোনাবাড়ীর পোশাক কারখানা শ্রমিকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার সৈয়দপুরে বিনামূল্যে অক্সিজেন সেবায় ‘ইটস হিউম্যানিটি’ গৌরবোজ্জল সংগ্রাম ও সাফল্যের ২৭ বছর পূর্তি, আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ কিশোরগঞ্জে স্বেচ্ছাসেবক লীগের ২৭তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জয় এর ৫০তম জন্মবার্ষিকীতে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের ডাক টিকেট, উদ্বোধন। কক্সবাজারের উখিয়ায় ভারী বর্ষনে পাহাড় ধসে ৫ ও পানিতে ১ শিশু নিহত সময় ও নম্বর কমিয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে নেয়া হবে,এসএসসি ও এইচএসসি বা সমমানের পরীক্ষা ডোমারে করোনা সংক্রমণরোধে মাস্ক বিতরণ চট্টগ্রামে লকডাউনের চতুর্থদিনে মহানগরীতে গাড়ি চলাচল বেড়েছে
বরিশালে ১৮৪ বস্তা চাল চুরির দায়ে আ.লীগ নেতা গ্রেফতার।

বরিশালে ১৮৪ বস্তা চাল চুরির দায়ে আ.লীগ নেতা গ্রেফতার।

বরিশাল জেলা প্রতিনিধি,
গত ১৫ এপ্রিল র‍্যাব-৮ সদস্যরা অভিযান চালিয়ে নূরে আলমের বাড়ি থেকে জেলেদের ১৮৪ বস্তা চাল উদ্ধার করেছিল। ওই সময় র‍্যাবের অভিযান টের পেয়ে বাড়ি থেকে পালিয়ে যান চেয়ারম্যান নূরে আলম। ওই দিনই র‍্যাব বাদী হয়ে তার বিরুদ্ধে মামলা করে। এরপর থেকে আত্মগোপনে ছিলেন নূরে আলম চাল চুরির মামলায় বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও কেদারপুর ইউনিয়ন পরিষদের বহিষ্কৃত চেয়ারম্যান নূরে আলমকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
মঙ্গলবার (১৬ জুন) সকালে কেদারপুর ইউনিয়নের স্টিমারঘাট সংলগ্ন বাড়ির পাশ থেকে নূরে আলমকে গ্রেফতার করা হয়।নূরে আলম কেদারপুর ইউনিয়নের স্টিমারঘাট এলাকার বাসিন্দা। তিনি উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য এবং কেদারপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি।
র‍্যাব-৮-এর সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মুকুর চাকমা বলেন, জেলেদের চাল ওজনে কম দেয়া হচ্ছে- এমন অভিযোগ পেয়ে ১৫ এপ্রিল কেদারপুর ইউনিয়ন পরিষদে অভিযান চালানো হয়েছিল। জনপ্রতি ৪০ কেজি চাল বিতরণের কথা থাকলেও প্রতিজনকে ১০ কেজি করে কম দেয়া হয়। এ অভিযোগে আটক করা হয় ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য মো. জাকির হোসেন ও ৮ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য মো. রোকনউজ্জামানকে।
র‍্যাবের জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানান, চেয়ারম্যান নূরে আলম জেলেদের মাঝে বিতরণের জন্য তাদের ৩৫ কেজি করে চাল দিয়েছেন। বাকি পাঁচ কেজি করে চাল তারা রেখে দিয়েছেন। এ কারণে ৪০ কেজি করে না দিয়ে তারা জনপ্রতি ৩০ কেজি করে চাল দিয়েছেন। চেয়ারম্যান নূরে আলমের বাড়িতে বেশ কয়েক বস্তা চাল রাখা আছে বলে জাকির ও রোকনউজ্জামান র‍্যাবকে জানান।
এএসপি মুকুর চাকমা আরও বলেন, জাকির ও রোকনউজ্জামানের দেয়া তথ্য অনুসারে সেই দিনই চেয়ারম্যান নূরে আলমের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে উদ্ধার করা হয় ৩০ কেজি ওজনের ১৮৪ বস্তা চাল। প্রতি বস্তা ৩০ কেজি হিসেবে পাঁচ হাজার ৫২০ কেজি চাল উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় নূরে আলমকে চেয়ারম্যান পদ থেকে বহিষ্কার করে।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST