ঘোষনা:
শিরোনাম :
চট্টগ্রামে মিতু হত্যায় সাবেক এসপিকে জিঙ্গাসাবাদ শেষে গ্রেফতার করেছে পিবিআই। ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে দুই মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-১, আহত-৩। খেটে খাওয়া এবং কর্মহীন মানুষের কল্যানে সহায়তা করে যাচ্ছে সরকার রেলপথ মন্ত্রী । নীলফামারীর ডোমারে মাইক্রোবাস ও মটরসাইকেলের সংঘর্ষে,নিহত ১। নীলফামারীতে সমাজের প্রবীণ ও অসচ্ছল প্রবীণ ব্যাক্তিদের মাঝে ঈদ উপহার নীলফামারীতে ঈদ-উল-ফিতরের নামাজ সকাল সাড়ে সাতটায় কেন্দ্রীয় বড় মসজিদে নীলফামারীতে বোরো ধানের বাম্পার ফলন,কৃষকের মুখে হাসির ঝলক। আগামীকাল চাঁদ দেখা গেলে বৃহস্পতিবার ঈদ নীলফামারীতে ভিজিএফ’র নগদ অর্থ বিতরণে অনিয়ম। স্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় হাল্ট প্রাইজের নেতৃত্বে নাজির-নুসরাত।
ডোমারে প্রধান বক্তা আর অতিথির বাক বিতন্ডায় মাহফিল পন্ডঅধ্যক্ষসহ তিনজন আটক

ডোমারে প্রধান বক্তা আর অতিথির বাক বিতন্ডায় মাহফিল পন্ডঅধ্যক্ষসহ তিনজন আটক

নীলফামারী প্রতিনিধি :
নীলফামারীর ডোমার উপজেলায় তাফসিরুল কোরআন মাহফিলে অতিথি আর প্রধান বক্তার বক্তব্য নিয়ে বাক বিতন্ডায় পন্ড হয়ে যায় তাফসিরুল কোরআন মাহফিল। মাহফিল শুনতেআসা লোকজন জানান, মাহফিলে প্রধান বক্তার বক্তব্য চলাকালীন বক্তব্যের এক সময় প্রধান বক্তা তৈয়বুর রহমান ভোট নিয়ে একটি কৌতুকের গল্প বলার সময় বক্তার সাথে বাক-বিতন্ডায় জড়িয়ে পরেন উপজেলা হাজি কল্যাণ সমিতির সাধারন সম্পাদক ও আওয়ামী লীগ নেতা অধ্যাপক করিমুল ইসলাম। তিনি ভোট নিয়ে বক্তব্যের প্রতিবাদ জানান ঐ মাহফিলে। এক সময় প্রধান বক্তা ও করিমুল ইসলামের বাক-বিতন্ডায় প্রধান বক্তা বক্তব্য না দিয়েই অনুষ্ঠানস্থল ত্যাগ করেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে আলহাজ্ব করিমুল ইসলামকে লাঞ্চিত করে মাহফিল শুনতে আসা কিছু শ্রোতা। মাহফিলে আসা লোকজন এ সময় আলহাজ্ব করিমুল ইসলামের উপর জুতা,স্যান্ডেল নিক্ষেপ করতে থাকলে এবং তাকে মারতে উদ্যত হলে মাওলানা আব্দুল হামিদ হোসাইনি,সুফি হুজুরসহ আয়োজক কমিটির সদস্যরা মানবঢাল হিসেবে তাকে রক্ষা করে নিরাপদ স্থানে নিয়ে যায়। শনিবার বিকালে উপজেলার সদর ইউনিয়নের মোল্লা পাড়ায় ঘটনাটি ঘটে। এতে করিমুল ইসলাম প্রানে বেচে গেলেও তাকে বাচাতে আয়োজক কমিটির অনেকেই আহত হয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এ ঘটনায় আয়োজক কমিটির অন্যতম সদস্য ও মাহফিলের বিশেষ বক্তা ডোমার ইসলামিয়া সিনিয়র দাখিল মাদ্র্যাসার অধ্যক্ষ শামছুদ্দিন হোসাইনী (৫০),তার বড়ভাই আয়োজক কমিটির প্রধান মাওলানা আব্দুল হামিদ হোসাইনি(৬০) ও তার ভাগ্নে আনারুল ইসলামকে(৪৫) আটক করে পুলিশ। শনিবার সন্ধ্যায় পশ্চিম চিকনমাটি মোল্লাপাড়া আমিনিয়া বায়তুল ফালাহ মসজিদ মাহফিল মাঠ হতে তাদের আটক করা হয়। এ ব্যপারে আলহাজ্ব করিমুল ইসলাম বাদী হয়ে ডোমার থানায় ১০ জনের নামে ও অজ্ঞাত আরো ৪০ হতে ৫০ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন।
মামলা সুত্রে জানা গেছে, শনিবার সকাল ১১ টা হতে উক্ত স্থানে এক তাফসিরুল কোরআন মাহফিল চলছিল। মাহফিলের প্রধান মুফাচ্ছির জাতীয় মুফাচ্ছির পরিষদ খুলনা বিভাগীয় সভাপতি হযরত মাও: অধ্যাপক তৈয়বুর রহমান ভোট নিয়ে বক্তব্য দেওয়ার সময় উপজেলা হাজি কল্যাণ সমিতির সাধান সম্পাদক অধ্যাপক করিমুল ইসলাম প্রতিবাদ করায় প্রধান মুফাচ্ছির ক্ষিপ্ত হয়ে মাহফিল হতে চলে যায়। এতে মাহফিলে উপস্থিত মুসল্লিরা প্রতিবাদকারীকে লাঞ্চিত ও ভাংচুর করে।
ডোমার থানার অফিসার্স ইনচার্জ মো: মোস্তাফিজুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, আয়োজক তিন জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ১০ জনের নামে ও ৪০ হতে ৫০ জনকে অজ্ঞাত করে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।দুপুরেই আটককৃতদের আদালতে প্রেরন করা হয়েছে বলেও তিনি জানিয়েছেন। তবে স্থানীয়দের সাথে কথা বলে জানাগেছে,করিমুল ইসলামকে যখন মাহফিল শুনতে আসা মানুষজন লাঞ্চিত করে তখন তাকে রক্ষায় আয়োজক কমিটির লোকজন মানবঢাল হিসেবে তাকে রক্ষা করে।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST