ঘোষনা:
শিরোনাম :
নীলফামারীতে পুড়ে ছাই পাঁচটি দোকান তিস্তার চরে গম চাষে আগ্রহ বেড়েছে কৃষকদের নীলফামারীতে উগ্রবাদ, জঙ্গি বাদ দমনে পাঁচ দিন ব্যাপী সচেতনতামূলক সেমিনার শুরু সক্ষম সকলকে কর প্রদানের আহবান প্রধানমন্ত্রীর রংপুর বিভাগীয় গন সমাবেশে নীলফামারী উপজেলা বিএনপি স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ  নীলফামারীর জলঢাকায় স্কুল বন্ধে নিমিসেই নিয়োগ শেষ, সভাপতির বিরুদ্ধে বাণিজ্যের অভিযোগ দেশ পাকিস্তান হবে নাকি মালয়েশিয়া- সিঙ্গাপুর, তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী সত্য বলার সৎ সাহসেই গঠিত হবে স্মার্ট বাংলাদেশ: অ্যাড. মমতাজুল শঙ্কামুক্ত নন অভিনেত্রী শারমিন আওয়ামী লীগ শাসনামলে দেশের ব্যাপক উন্নয়ন বিবেচনায় নিতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর
নীলফামারীর ডোমারে ঘুর্নিঝড়ে গাছপালাসহ ঘরবাড়ীর ব্যাপক ক্ষতি ।

নীলফামারীর ডোমারে ঘুর্নিঝড়ে গাছপালাসহ ঘরবাড়ীর ব্যাপক ক্ষতি ।

নীলফামারী প্রতিনিধি ,
জেলার ডোমার উপজেলার উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া দুই মিনিটের ঘুর্নিঝড়ে ডোমারে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ঘুর্ণিঝড়ের আঘাতে প্রায় শতাধিক মানুষের ঘড়বাড়ী ভেঙ্গে যায়। উপরে গেছে শতবর্ষী বটগাছ। গাছ উপরে পরে মানুষের ঘড়বাড়ীর ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। শুক্রবার ভোর ৪টা ১২ মিনিটে এই ঘুর্নিঝড় শুরু হয়ে মাত্র দুই মিনিট স্থায়ী হয়। আর এই দুই মিনিটেই ডোমার পৌরসভার ৩,৪ ও ৬ নং ওয়ার্ডে মানুষের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। পৌরসভার সাহাপাড়া,এলএসডি মোড় ও সওদাগড় পাড়া এলাকায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়েছে। ইতিমধ্যে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শন করেছেন উপজেলা চেয়ারম্যান তোফায়েল আহমেদ।
পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের পোষ্ট অফিস সংলগ্ন মোঃ মহসিনের বাড়ী ঝড়ে সম্পর্নরুপে পড়ে যায়। মোঃ মহসীন জানান,ঝড়ে তার ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ভাগ্যক্রমে বেচে গেছেন তারা। কৃষি ব্যাংকের জামগাছ ঝড়ে ভেং্গে যায়। এছাড়া সাহাপাড়ার চানু মিয়ার ১০টি বড় গাছ উপড়ে পরে যায়। ৬ নং ওয়ার্ডে সমর সহা, সিপন সওদাগড়,মোজাফ্ফর সওদাগড়,সহিদুল ও মনোয়ারের বাড়ীর তছনছ হয়ে যায়।
৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ আখতারুজ্জামান সুমন বলেন,ঝড়ে তার ওয়ার্ডে সব থেকে বেশি ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। তিনি বলেন তার ওয়ার্ডে প্রায় ৫০টি পরিবার ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। অনেকের বাড়ী একেবারেই ভেঙ্গে গেছে। ৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মিজানুর রহমান তুলু জানান, ঝড়ে সওদাগড় পাড়া বেশকিছু ঘড়বাড়ী একেবারেই ভেঙ্গে গেছে। উপরে গেছে অনেক বড় বড় গাছ। তিনি জানান,ঝড়ে ৬ নং ওয়ার্ডে ২০ লক্ষটাকার বেশি ক্ষতি হয়েছে। ডোমার এলএসডি মোড়ে শতবর্ষী বটগাছটি ঝড়ে উপরে গেছে। উপজেলার বিভিন্ন এলাকার মানুষজন শহরে এসে এই গাছের ছায়ায় বসে আরাম করতো বলে ঐ এলাকাটিকে শান্তির মোড় নামে ডাকা হতো। শান্তির মোড়ের শতবর্ষী বটগাছটি উপড়ে যাওয়ায় এখন আর শহরে কোন বিশ্রামের জায়গা থাকলো না। এসব ছাড়াও উপজেলার বেশকিছু এলাকা ঝড়ের কবলে পরে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ভোর থেকে রয়েছে বিদ্যুত বিচ্ছিন্ন। বিকাল সাড়ে পাচটা পর্যন্ত বিদ্যুত বিচ্ছিন্ন রয়েছে গোটা উপজেলায়।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST