ঘোষনা:
শিরোনাম :
নীলফামারীর সৈয়দপুরে কিশোরীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার ডিমলায় গাড়ী চালক শ্রমিকদের মাস্ক পড়তে সচেতনতামুলক মতবিনিময় নীলফামারীতে ট্রাকের চাকায় পিষ্টে,নারী পোশাক কর্মীর মৃত্যু চট্টগ্রামে গনধর্ষণের পর হত্যা, মামলায় ১ জনের মৃত্যুদন্ড চট্টগ্রামে দুদকের মামলায় দুই রাজস্ব কর্মকর্তা কারাগারে নীলফামারীতে শীতের তীব্রতায় দুর্ভোগ,সূর্যের দেখা মিলবেনা সারাদিন বাংলাদেশের অগ্রগতির অদম্য গতি কেউ থামাতে পারবে না : প্রধানমন্ত্রী গভীর রাতে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত দুই নীলফামারীতে মাইক্রোবাসের ধাক্কায় শিশু নিহত ডিমলায় ৪র্থ শ্রেনীর ছাত্রী ধর্ষন, ধর্ষক আটক
চুনারুঘাটে ব্রিজের অভাবে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীসহ এলাকাবাসীর চলাচলে দুর্ভোগ।

চুনারুঘাটে ব্রিজের অভাবে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীসহ এলাকাবাসীর চলাচলে দুর্ভোগ।

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি ,
উপজেলার করাঙ্গী নদীর বাঁধের উপরের রাস্তাটি দিয়ে কৃষ্ণপুর, কুনাউড়া, টিলাগাঁও, কাজির খীল, ছিলমী, সিরাজনগর, সাটিয়াজুরীসহ ১০টি গ্রামের প্রায় ৫ হাজার মানুষ প্রতিনিয়ত চলাচল করেন।
হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার সাটিয়াজুরী ইউনিয়ন পরিষদ থেকে শ্রীবাড়ি চা বাগান পর্যন্ত রাস্তায় ২০ ফুট জায়গায় একটি ব্রিজ না থাকায় দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন ১০টি গ্রামের অন্তত ৫ হাজার মানুষ। পানি ভেঙেই তাদের প্রতিনিয়ত যাতায়াত করতে হচ্ছে।

গত বছর জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ৫০ হাজার টাকা বরাদ্দ দিলেও কাজের কাজ কিছুই হয়নি বলে অভিযোগ এলাকাবাসীর।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত বছর বর্ষাকালে কৃষ্ণপুর এলাকায় প্রায় ২০ ফুট এলাকা ভেঙে এলাকার ভেতর পানি প্রবেশ করতে থাকে। এতে কুনাউড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও দ্বারাগাঁও ইসমাইল মুন্সী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীসহ এলাকাবাসীর চলাচলে দুর্ভোগ দেখা দিয়েছে। পানিই যাতায়াত করছেন তারা। বিষয়টি নিয়ে বার বার স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের স্মরণাপন্ন হলেও এর প্রতি নজর দিচ্ছেন না কেউ।

স্থানীয় কাজী মাহমুদুল হক সুজন জানান, গত বছর ভাঙা জায়গাটি পরিদর্শন করে তাৎক্ষণিকভাবে ৫০ হাজার টাকা বরাদ্দ দিয়েছিলেন জেলা প্রশাসক মাহমুদুল কবীর মুরাদ। কিন্তু কাজের কাজ কিছুই হয়নি। টাকা কোথায় গেছে এরও কোনো হদিস নেই।

দ্বারাগাঁও ইসমাইল মুন্সী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সাইফুর রহমান চৌধুরী জানান, রাস্তাটি ভাঙা থাকায় এলাকার শিক্ষার্থীরা নিয়মিত ক্লাসে অংশ নিতে পারছে না। শিগগির এ ব্যাপারে উদ্যোগ নিতে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন তিনি।

কুনাগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আব্দুর রহিম জানান, কোমলমতি শিক্ষার্থীরা জামা-কাপড় ভিজিয়ে রাস্তাটি দিয়ে চলাচল করছে। এছাড়া যে কোনো সময় বড় ধরনের দুর্ঘটনার আশঙ্কা রয়েছে। মাত্র ২০ ফুট জায়গায় ছোট একটি ব্রিজ নির্মাণ হলেই দুর্ভোগ কমে যেত, সেটাই হচ্ছে না বলে দুঃখ প্রকাশ করেন তিনি।

চুনারুঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মঈন উদ্দিন ইকবাল জানিয়েছেন, এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST