ঘোষনা:
শিরোনাম :
ঢাকা সিলেট মহাসড়কে ট্রাকের ধাক্কায় মটর সাইকের আরোহী পুলিশের এস আই নিহত। ডোমার উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তার বিদায়, বরণ সংবর্ধনা । রিসোর্টে নারীকে নিয়ে, মামুনুলের ব্যক্তিগত বিষয়, এ নিয়ে হেফাজতের বক্তব্য নেই। নীলফামারী সৈয়দপুরে বৈশাখ আর ঈদের কেনাকাটায় ব্যাস্ত মানুষ। রাষ্ট্রপতির শোক বার্তা দিয়েছেন একুশে পদকপ্রাপ্ত রবীন্দ্রসংগীত শিল্পীর মৃত্যুতে। সাতক্ষীরায় ঘাতক সাগর গ্রেপ্তার, ‘২০০ টাকার জন্য বন্ধুকে খুন ’ ঘাতকের স্বীকারোক্তি। সীতাকুণ্ডে পুকুর থেকে যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।স্ত্রীকে আটক। চট্টগ্রামে করোনায় প্রাণ গেল এক চিকিৎসকের। কক্সবাজার সৈকতে আরও একটি মৃত তিমি ভেসে এসেছে । সাতক্ষীরায় করোনা মোকাবেলায় জেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ।
এইচএসসি পরীক্ষায় গড় পাসের হার ৭৩ দশমিক ৯৩ শতাংশ।

এইচএসসি পরীক্ষায় গড় পাসের হার ৭৩ দশমিক ৯৩ শতাংশ।

ঢাকা প্রতিবেদক,

উচ্চ মাধ্যমিক (এইচএসসি) ও সমমানের পরীক্ষায় এ বছর পাসের হার গত বছরের তুলনায় ৭ শতাংশ বেশি।
এ বছরের উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) ও সমমানের পরীক্ষায় পাসের হারে ছাত্রদের তুলনায় ছাত্রীরা এগিয়ে। ফলাফলের তুলনামূলক বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, শুধু এ বছরই নয়, ২০১৫ সাল থেকে পাঁচ বছর ধরেই এই পরীক্ষায় ছাত্রীরা ধারাবাহিকভাবে ছাত্রদের চেয়ে বেশি পাস করছে। এ বছর এই পরীক্ষায় ছাত্রীদের পাসের হার ৭৬ দশমিক ৪৪ শতাংশ। আর ছাত্রদের পাসের হার ৭১ দশমিক ৬৭ শতাংশ। আজ বুধবার এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়। এতে মোট ১৩ লাখ ৩৬ হাজার ৬২৯ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেয়। এর মধ্যে পাস করেছে ৯ লাখ ৮৮ হাজার ১৭২ জন। গড় পাসের হার ৭৩ দশমিক ৯৩ শতাংশ। যা গতবার ছিল ৬৬ দশমিক ৬৪ শতাংশ। সকালে গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে ফলাফলের তথ্য তুলে দেন শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনিসহ শিক্ষাবোর্ডগুলোর চেয়ারম্যানেরা। পরে দুপুরে সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে ফলাফলের তথ্য তুলে ধরেন শিক্ষামন্ত্রী। আর দুপুর একটায় স্ব স্ব কেন্দ্র ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে এবং অনলাইনে ফলাফল একযোগে প্রকাশ করা হয়। ফলাফলের তুলনামূলক বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, ২০১৫ সালে ৭০ দশমিক ২৩ শতাংশ ছাত্রী পাস করেছিল। তখন ছাত্রদের পাসের হার ছিল ৬৯ দশমিক শূন্য ৪ শতাংশ। পরের বছরে ছাত্রীদের পাসের হার হয় ৭৫ দশমিক ৬০ শতাংশ। ওই বছর ছাত্রদের পাসের হার হয় ৭৩ দশমিক ৯৩ শতাংশ। ২০১৭ সালে ছাত্রীদের পাসের হার ৭০ দশমিক ৪৩ শতাংশ এবং ছাত্রীদের পাসের হার ৬৭ দশমিক ৬১ শতাংশ। আর গেল বছর ছাত্রীদের পাসের হার হয় ৬৯ দশমিক ৭২ শতাংশ। তখন ছাত্রদের পাসের হার ছিল ৬৩ দশমিক ৮৮ শতাংশ। আর এ বছর ছাত্রদের তুলনায় ছাত্রীদের পাসের হার ৪ দশমিক ৭৭ শতাংশ বেশি। তবে ফলের সর্বোচ্চ সূচক জিপিএ-৫ পাওয়ার ক্ষেত্রে ছাত্রীদের চেয়ে ছাত্ররা এগিয়ে রয়েছেন। এবার ১০টি শিক্ষাবোর্ডে মোট জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৪৭ হাজার ২৮৬ জন। এর মধ্যে ছাত্র ২৪ হাজার ৫৭৬ জন। আর ছাত্রী ২২ হাজার ৭১০ জন।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST