ঘোষনা:
শিরোনাম :
হিট স্ট্রোকের আগে কি কি,উপসর্গ হতে পারে সাতক্ষীরায় প্রেমিকার বাড়ীতে নির্মম নির্যাতনের শিকার টেক্সটাইলস ইঞ্জিনিয়ার রংপুরে ক্যামেরায় কথা বলছে, গ্রামীন জনপদের ফরিদপুরে বাস পিক-আপ মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ১২, আশঙ্কাজনক ৩ পহেলা বৈশাখে বর্ণিল উৎসবে মেতেছে নীলফামারী সাতক্ষীরায় ভিডিও কলে রেখে ঘরে গলায় ফাঁস দিয়ে বিউটিশিয়ানের আত্মহত্যা নীলফামারীতে ঘোড়ার প্রতি পাকে,পরিবারে জীবনের গল্পটা কস্টের নীলফামারীতে কর্মসংস্থান কর্মসূচি প্রকল্পের কাজের উদ্বোধন ঈদে বাড়ি ফেরা হলো না, শিশু সন্তান সহ পরিবারের  ঈদে ৫ দিন বন্ধের পরে, সাতক্ষীরা স্থলবন্দরে আমদানী-রপ্তানী শুরু, কর্মচাঞ্চল্য
আবরারকে হত্যায় আরও এক শিক্ষার্থীকে উত্তরা থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

আবরারকে হত্যায় আরও এক শিক্ষার্থীকে উত্তরা থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

ঢাকা প্রতিবেদক ,
আবরারকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় আরও এক শিক্ষার্থীকে উত্তরা থেকে গ্রেফতার করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। আজ শনিবার ১১টায় উত্তরার ১৪ নম্বর সেক্টর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। মোয়াজের নাম আবরার হত্যা মামলার এজাহারে ছিল। বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় শিক্ষার্থী মোয়াজ আবু হুরায়রাকে (২০) গ্রেফতার করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) মিডিয়া ও পাবলিক রিলেসন্স বিভাগ বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। ডিএমপি জানায়, মোয়াজের বাড়ি কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচরে। তিনি বুয়েটের ইইই বিভাগের ১৭তম ব্যাচের ছাত্র। হত্যার ঘটনায় তিনি জড়িত ছিলেন বলে প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে। ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দেয়ার জেরে বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে রোববার (৬ অক্টোবর) রাতে ডেকে নিয়ে যায় বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতাকর্মী। এরপর রাত ৩টার দিকে শেরেবাংলা হলের নিচতলা ও দোতলার সিঁড়ির করিডোর থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়।
সোমবার (৭ অক্টোবর) দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতাল মর্গে আবরারের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়। ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সোহেল মাহমুদ লাশের ময়নাতদন্ত করেন। তিনি বলেন, ‘ছেলেটিকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে।’ নিহত আবরার বুয়েটের ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ছিলেন। তিনি শেরে বাংলা হলের ১০১১ নম্বর কক্ষে থাকতেন।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST