ঘোষনা:
শিরোনাম :
সত্য বলার সৎ সাহসেই গঠিত হবে স্মার্ট বাংলাদেশ: অ্যাড. মমতাজুল শঙ্কামুক্ত নন অভিনেত্রী শারমিন আওয়ামী লীগ শাসনামলে দেশের ব্যাপক উন্নয়ন বিবেচনায় নিতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর নীলফামারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের ক্লাস প্রমোশন না দেয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন নীলফামারীতে সড়ক দূর্ঘটনায় আহত ৮ জন নীলফামারীতে পুলিশ সার্ভিস এসোসিয়েশনের শীতবস্ত্র বিতরণ কিশোরগঞ্জে বিদায়ী মাঘে শীতের হানা কিশোরগঞ্জে অপহরণের দায়ে পেশ ইমাম আটক-ছাত্রী উদ্ধার বিপদে পুলিশকে পাশে পেয়ে মানুষ যেন স্বস্তি বোধ করে তা নিশ্চিত করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী উন্নয়নের বদলে শেখ হাসিনাকে ভোট উপহার দিন: চাঁপাইনবাবগঞ্জে নানক
ঈদুল-ফিতরের আগে একদিন ছুটি মিললে এবার টানা নয়দিন ছুটি ভোগ করতে পারবেন সরকারি চাকরিজীবীরা।

ঈদুল-ফিতরের আগে একদিন ছুটি মিললে এবার টানা নয়দিন ছুটি ভোগ করতে পারবেন সরকারি চাকরিজীবীরা।

ঢাকা প্রতিবেদক,
ঈদুল-ফিতরের আগে একদিন ছুটি মিললে এবার টানা নয়দিন ছুটি ভোগ করতে পারবেন সরকারি চাকরিজীবীরা। তবে সেই ছুটির বিষয়টি নির্ভর করছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এখতিয়ারের ওপর। কারণ, তিনিই নির্বাহী আদেশে ছুটি ঘোষণা করতে পারেন ৩ জুন। যদিও প্রধানমন্ত্রী দীর্ঘ সফরে দেশের বাইরে যাচ্ছেন ২৮ মে, আর ফিরবেন ৮ জুন। তবে দেশের বাইরে থাকলেও ই-নথির মাধ্যমেও মিলতে পারে ছুটির আদেশ।
এবার ঈদের ছুটির আগে ও পরে সাপ্তাহিক ছুটি, লাইলাতুল কদরের ছুটির মধ্যে রয়েছে একটি কর্মদিবস। ৩ জুনের এই কর্মদিবসে ছুটি হলে টানা ৯ দিনের ছুটি মিলবে।
শবে কদরের ছুটির আগে ৩১ মে ও ১ জুন শুক্র ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি। ২ জুন রোববার কদরের ছুটি। ২৯ রোজা ধরলে এবার ঈদ হবে ৫ জুন বুধবার। আর ৩০ দিন পূর্ণ হলে ঈদ হবে ৬ জুন বৃহস্পতিবার। ঈদের ছুটি শুরু হবে ৪ জুন। ৫ জুন ঈদ হলে ছুটি থাকবে ৪, ৫ ও ৬ জুন অর্থাৎ মঙ্গল, বুধ ও বৃহস্পতি। এরপর শুক্র ও শনিবার ৭ ও ৮ জুন দু’দিন সাপ্তাহিক ছুটি।
আর ৬ জুন ঈদ হলে ঈদের ছুটি একদিন বেড়ে ৭ জুন পর্যন্ত হবে। এক্ষেত্রে ঈদের ছুটি হবে ৪, ৫, ৬ ও ৭ জুন। অর্থাৎ, ৭ জুনের ঈদের ছুটি পড়বে শুক্রবার সাপ্তাহিক ছুটির মধ্যে।
ঈদের সময়ে সাপ্তাহিক ছুটি ও শবে কদরের ছুটির মধ্যে মাত্র এক দিন (৩ জুন) ছুটি নিয়ে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মধ্যে আলোচনা চলছে। ৩ জুন ছুটি ঘোষণা করার পক্ষেই সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা।
প্রধানমন্ত্রী দেশের বাইরে যাওয়ার আগে সোমবার মন্ত্রিসভার বৈঠকে ছুটি নিয়ে আলোচনা হয়েছে কিনা- তা নিয়ে প্রশ্ন অনেকেরই। মন্ত্রিসভার বৈঠক শেষে ব্রিফিংয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলমের কাছেও জানতে চেয়েছেন সাংবাদিকেরা। ছুটি নিয়ে কোনো আলোচনা হয়েছে কিনা- জানতে চাইলে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, এটা আলোচনা হয়নি। আমার মনে হয় সামারির মাধ্যমে নিষ্পত্তি হবে, যদি হয় (ছুটি) আরকি। ছুটির সম্ভাবনা আছে কিনা- প্রশ্নে তিনি বলেন, এখনো কোনো আলোচনা শুনিনি। মাঝখানে একটি দিন পড়ে যায়, ৩ তারিখ।
প্রধানমন্ত্রী নির্বাহী আদেশে একদিন ছুটি ঘোষণা করতে পারেন বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা।
প্রধানমন্ত্রী বিদেশে থাকবেন, এই সময়ে ছুটির ফাইল সই হবে কিনা- জানতে চাইলে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, প্রধানমন্ত্রী এখন বিদেশে থাকলেও কাজ করেন। এখন তো ইন্টারনেটের যুগ। ফাইল মেইলে চলে যায়, মেইলে চলে আসে। কোনো সমস্যা হয় না। ই-নথি (ইলেকট্রনিক নথি) করি আমরা।
প্রধানমন্ত্রী দেশে থাকবেন না- এই সময়ে কোনো নির্দেশনা আছে কিনা- জানতে চাইলে মন্ত্রিপরিষদ সচিব জানান, আমরা যার যার কাজ প্রত্যেকে চালিয়ে যাব।
এর আগে ২০১৬ সালে ঈদ-উল-ফিতরের সময় শবে কদর, সাপ্তাহিক ছুটির সঙ্গে ঈদুল ফিতরের ছুটি মিলিয়ে টানা ৯ দিনের ছুটির মধ্যে একদিন অফিস খোলা ছিল। ওই সময় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে মাঝখানের একদিন ছুটি ঘোষণা করা হয়েছিল।
ওই সময়ে ১ থেকে ৯ জুলাইয়ের মধ্যে ৪ জুলাই ছিল কর্মদিবস। সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের টানা ছুটির সুযোগ দিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ওইদিন ছুটি ঘোষণা করেন। তবে ৪ জুলাইয়ের পরিবর্তে ১৬ জুলাই শনিবার অফিস করতে হয় সরকারি চাকরিজীবীদের।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST