ঘোষনা:
শিরোনাম :
শঙ্কামুক্ত নন অভিনেত্রী শারমিন আওয়ামী লীগ শাসনামলে দেশের ব্যাপক উন্নয়ন বিবেচনায় নিতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর নীলফামারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের ক্লাস প্রমোশন না দেয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন নীলফামারীতে সড়ক দূর্ঘটনায় আহত ৮ জন নীলফামারীতে পুলিশ সার্ভিস এসোসিয়েশনের শীতবস্ত্র বিতরণ কিশোরগঞ্জে বিদায়ী মাঘে শীতের হানা কিশোরগঞ্জে অপহরণের দায়ে পেশ ইমাম আটক-ছাত্রী উদ্ধার বিপদে পুলিশকে পাশে পেয়ে মানুষ যেন স্বস্তি বোধ করে তা নিশ্চিত করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী উন্নয়নের বদলে শেখ হাসিনাকে ভোট উপহার দিন: চাঁপাইনবাবগঞ্জে নানক বিএনপির বক্তব্যে মনে হয় আওয়ামী লীগকে রাজপথে দেখে তারা ভীত : তথ্যমন্ত্রী
এসএসসি-সমমানের পুনঃনিরীক্ষণ ফল ৩০ জুনের মধ্যে প্রকাশ।

এসএসসি-সমমানের পুনঃনিরীক্ষণ ফল ৩০ জুনের মধ্যে প্রকাশ।

স্টাফ রিপোর্টার,
এসএসসি-সমমানের পুনঃনিরীক্ষণ ফল ৩০ জুনের মধ্যে প্রকাশ।এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার খাতা পুনঃমূল্যায়নের ফল আগামী ২৯-৩০ জুনের মধ্যে প্রকাশ করা হবে। ইতিমধ্যে আবেদনকারীদের উত্তরপত্রের নম্বর পুনরায় গণনার কাজ শেষ পর্যায়ে। খাতা পরিবর্তিত নম্বর, গ্রেডসহ ফল আবেদনকারীর মোবাইল নম্বরে পাঠানো হবে বলে আন্তঃশিক্ষা সমন্বয় বোর্ড সূত্রে জানা গেছে।

সূত্র জানায়, এ বছর এসএসসি-সমমান পরীক্ষার ফলে রেকর্ডসংখ্যক পুনঃনিরীক্ষণ আবেদন আসে। ফলে সন্তুষ্ট নয় সারাদেশে দুই লাখ ৩৪ হাজার ৪৭১ শিক্ষার্থী। এ কারণে বিভিন্ন বিষয়ের উত্তরপত্র পুনঃমূল্যায়নের জন্য বোর্ড চ্যালেঞ্জ করে মোট চার লাখ ৮১ হাজার ২২২টি বিষয়ের ফলে আপত্তি তুলে আবেদন করে। গত বছর আবেদনকারীর সংখ্যা ছিল এক লাখ ৬৫ হাজার ৬৫৮ জন।

গত ৩১ মে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ হয়। এবার গড় পাসের হার ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ, যা গত বছর ছিল ৮২ দশমিক ২০ শতাংশ। এ বছর মোট জিপিএ-৫ পেয়েছে এক লাখ ৩৫ হাজার ৮৯৮ জন, যা গত বছর পেয়েছিল এক লাখ পাঁচ হাজার ৫৯৪ জন। পরীক্ষার ফলে আপত্তি থাকা শিক্ষার্থীদের জন্য গত ১ জুন শুরু হয় পুনঃনিরীক্ষণ আবেদন কার্যক্রম, যা ৭ জুন শেষ হয়।

বিভিন্ন শিক্ষা বোর্ড থেকে জানা গেছে, এবার ১১ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে দুই লাখ ৩৮ হাজার ৪৭১ পরীক্ষার্থী তার কাঙ্ক্ষিত ফল না পেয়ে মোট ৪ লাখ ৮১ হাজার ২২২টি বিষয়ে ফল পরিবর্তনের প্রত্যাশায় আপত্তি জানিয়ে আবেদন করে। এর মধ্যে ঢাকা বোর্ডে এক লাখ ৪৬ হাজার ২৬০, বরিশালে ২৩ হাজার ৮৫০, চট্টগ্রামে ৫২ হাজার ২৪৬, দিনাজপুরে ৪০ হাজার ৭৫, রাজশাহীতে ৪৪ হাজার ৬১, সিলেটে ২৩ হাজার ৭৯০, কুমিল্লা বোর্ডে ৩৯ হাজার ৩০৩, ময়মনসিংহে ৩১ হাজার ৩৩১, মাদরাসা বোর্ডে ২৮ হাজার ৪৮৪ এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে ১৭ হাজার ৫৩৮টি বিষয়ে খাতা পুনঃমূল্যায়নের আবেদন করেছে। যার মধ্যে ঢাকা বোর্ডে আবেদনের সংখ্যা সব চাইতে বেশি।

শিক্ষা বোর্ড কর্মকর্তারা জানান, একজন শিক্ষার্থী একাধিক বিষয়ের উত্তরপত্র চ্যালেঞ্জ করে আবেদন করেছে। তার মধ্যে ইংরেজি, গণিত, বিজ্ঞান, রসায়ন, পদার্থ, জীববিজ্ঞান, বাংলায় আবেদন বেশি রয়েছে।

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান ও আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক মু. জিয়াউল হক গ্রাম পোষ্টকে বলেন, ২০ লাখ শিক্ষার্থীর মধ্যে পুনঃনিরীক্ষণের জন্য আড়াই শতাংশের মতো আবেদন করেছে। অনেকে ভাবে একটা আবেদন করে দেখি কিছু বাড়ে কি না? অনেকে আবার সিরিয়াসলিই ফল পরিবর্তনের আত্মবিশ্বাস থেকে আবেদন করে। আগামী ৩০ জুনের মধ্যে ফল প্রকাশ করা হবে বলে জানান তিনি।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST