ঘোষনা:
শিরোনাম :
নীলফামারীর সৈয়দপুর নির্বাচনে কাউন্সিলর সমর্থক নিহত,১আহত-২। নীলফামারীর সৈয়দপুর পৌর নির্বাচন থেকে জাপা প্রার্থীর ভোট বর্জন। দীর্ঘ এক বছর পর ৩০ মার্চ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ক্লাস শুরু,শিক্ষামন্ত্রী। চট্টগ্রামে সমন্বয়ের অভাবে কাঙ্ক্ষিত উন্নয়ন হচ্ছে না, পল্লি উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী, তাজুল ইসলাম । খুলনার মহাসমাবেশে শ্লোগান,এক সংগ্রাম, এক ডাক, আওয়ামী লীগ সরকার নিপাত যাক। বদরগঞ্জে একঝাঁক তরুন তরুনীদের প্রচেষ্টায় বদরগঞ্জে বি-বাজারের যাত্রা শুরু। বদরগঞ্জে শয়নকক্ষে শিক্ষার্থীর গলাকাটা মরদেহ : হত্যা নাকি আত্মহত্যা। জলঢাকায় গাঁজা কেনাবেচা কালে মা-ছেলেসহ আটক-৩। নীলফামারীর সৈয়দপুর পৌরসভায় প্রথমবার ইভিএমে ভোট।সকল প্রস্তুতি শেষ করেছে প্রশাসন। কিশোরগঞ্জে জাপা কর্মীর জানাজা সম্পন্ন ।
এবারে প্রথম থেকে নবম শ্রেণিতে লটারির মাধ্যমে ভর্তি; শিক্ষামন্ত্রী।

এবারে প্রথম থেকে নবম শ্রেণিতে লটারির মাধ্যমে ভর্তি; শিক্ষামন্ত্রী।

স্টাফ রিপোর্টার,
শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি বলেন, করোনা ভাইরাস মহামারির মধ্যে এবার মাধ্যমিক স্তরের প্রথম থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত লটারির মাধ্যমে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। মাধ্যমিক স্তরের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে শিক্ষার্থী ভর্তি নিয়ে বুধবার (২৫ নভেম্বর) এক ভার্চ্যুয়াল সংবাদ সম্মেলনে শিক্ষামন্ত্রী এ তথ্য জানান।

এসময় শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. মাহবুব হোসেন, কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. আমিনুল ইসলাম খান, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক সৈয়দ মো. গোলাম ফারুকসহ কর্মকর্তারা সংযুক্ত ছিলেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, স্বাস্থ্য ঝুঁকি এড়াতে প্রতি শ্রেণিতে লটারির মাধ্যমে শিক্ষার্থী ভর্তির সিদ্ধান্ত নিয়েছি। যোগ্যতার চাইতে ভাগ্যকে প্রাধ্যান্য দেওয়া হচ্ছে। আমরা বাধ্য হয়েই এ পদ্ধতি বেছে নিয়েছি।

রাজধানীর শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে শিক্ষার্থী ভর্তিতে ক্যাচমেন্ট কোটা ৪০ থেকে বাড়িয়ে ৫০ শতাংশ করা হয়েছে। এছাড়া ক্লাস্টারভিত্তিক লটারিতে ঢাকার শিক্ষার্থীরা একটির জায়গায় পাঁচটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বাছাই করার সুযোগ পাবে বলেও জানান শিক্ষামন্ত্রী।

প্রতিবছর প্রথম শ্রেণিতে লটারির মাধ্যমে এবং দ্বিতীয় থেকে অষ্টম শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষা নিয়ে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হতো। আর জেএসসি-জেডিসির ফলের ভিত্তিতে নবম শ্রেণিতে শিক্ষার্থীরা ভর্তি হয়। করোনার কারণে অষ্টমের সমাপনী পরীক্ষা বাতিল করায় এবার সেই সুযোগ নেই উল্লেখ করে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, আমরা তিনটি বিকল্প খতিয়ে দেখেছি। এর একটি হচ্ছে স্কুলে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া। কিন্তু শিক্ষার্থীদের স্কুলে এনে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়ার ঝুঁকি নিতে চাচ্ছি না। এমসিকিউ পদ্ধতির কথা চিন্তা করেছি, কিন্তু তাতেও শিক্ষার্থীদের স্কুলে আসতে হতো। অনলাইনে ভর্তি পরীক্ষা নিলে সবার জন্য নিরাপদ হলেও সব শিক্ষার্থীর অনলাইনে ভর্তি পরীক্ষা নিশ্চিত করা কঠিন হবে, তাই এটি যুক্তিযুক্ত মনে হয়নি। সবার ইন্টারনেট অ্যাকসেস নেই, আবার সংযোগেও সমস্যা আছে।

আগামী ৭ ডিসেম্বরের মধ্যে প্রথম থেকে নবম শ্রেণিতে ভর্তির সামগ্রিক প্রক্রিয়া জানিয়ে দেওয়া হবে বলে জানান শিক্ষামন্ত্রী।

মহামারির কারণে গত ১৭ মার্চ থেকে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেওয়া হয়। কওমি মাদ্রাসা বাদে অন্যসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আগামী ১৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত ছুটি ঘোষণা করা আছে। করোনার কারণে পঞ্চম ও অষ্টমের সমাপনী পরীক্ষা এবং প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তরের বার্ষিক পরীক্ষা না নিয়ে পরবর্তী ক্লাসে তুলে দেওয়া হবে।

অন্যদিকে অষ্টমের সমাপনী এবং এসএসসি-সমমানের ফলফলের ভিত্তিতে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল ঘোষণা করা হবে। ডিসেম্বরে এ ফল ঘোষণার কথা রয়েছে।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST