ঘোষনা:
শিরোনাম :
পদ্মা সেতু হওয়ায় বিএনপি উদভ্রান্তের মত কথা বলছে,চট্টগ্রামে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী বানভাসি মানুষের পাসে লিয়ন চৌধুরী নীলফামারীতে মধ্য রাতে মাতলামি; প্রতিবাদ করায় গুরুতর রগকাটা জখম, থানায় এজাহার। নীলফামারীতে এক মাস ব্যাপি পুনাক তাঁত শিল্প ও পণ্য মেলার শুভ উদ্বোধন পাহাড়ে সন্ত্রাস দমনে এপিবিএন’র টহল শুরু শিক্ষক হত্যা ও কলেজ অধ্যক্ষকে নির্যাতনের প্রতিবাদে নীলফামারীতে মানববন্ধন ও স্মারকলিপি প্রদান। আওয়ামীলীগ হিন্দুদের দল, ভারতের চর এসব ট্যাবলেটে এখন আর কাজ হয়না,তথ্যমন্ত্রী হলি আর্টিজানে জঙ্গি হামলায় ৬ বছর পূর্তিতে,কূটনীতিকরা নিহতদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা বিকেএসপিতে ব্লু খেতাব অর্জন,দেশসেরা নারী আরচার নীলফামারীর দিয়া সিদ্দিকী জাতি হিসেবে আমাদের সক্ষমতাকে সবসময় অবমূল্যায়ন করে সমালোচকরা বললেন,প্রধানমন্ত্রী
সাতক্ষীরায় প্রধানমন্ত্রীর গাড়িবহরে হামলা মামলায় তদন্ত কর্মকর্তার জবানবন্দী প্রদান।

সাতক্ষীরায় প্রধানমন্ত্রীর গাড়িবহরে হামলা মামলায় তদন্ত কর্মকর্তার জবানবন্দী প্রদান।

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি,

সাতক্ষীরার কলারোয়ায় সাবেক বিরোধীদলীয় নেত্রী ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গাড়িবহরে হামলার মামলায় তদন্ত কর্মকর্তার জবানবন্দী প্রদান।

আজ মঙ্গলবার তদন্ত কর্মকর্তা শফিকুর রহমান আদালতে জবানবন্দী প্রদান করেছে। একই সাথে আসামীপক্ষের আইনজীবিরা তাকে জেরাও করেছেন। সাতক্ষীরার চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ হুমায়ুন কবিরের আদালতে তার জবানবন্দী ও জেরার বক্তব্য রেকর্ড করা হয়। এনিয়ে এ মামলায় এ পর্যন্ত মোট ২০ জনের সাক্ষ্য ও জেরা শেষ হয়েছে। এদিকে, এ মামলায় রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবির আবেদনের প্রেক্ষিতে ২০ জন স্বাক্ষীর সাক্ষ্য প্রদান শেষে সাক্ষ্য গ্রহন শেষ করা হরা হয়েছে। এ মামলায় আসামীদের পরীক্ষা (৩৪২) এবং যুক্তিতর্কের জন্য পরবর্তী দিন ধার্য করা হয়েছে ২৯ ডিসেম্বর।এসময় আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল এসএম মুনির, ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল সুজিত চ্যাটার্জী, ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল শাহীন মৃধা ও পিপি এ্যাড. আব্দুল লতিফ উপস্থিত ছিলেন। অপরদিকে, আসামীপক্ষে ছিলেন এ্যাড. আব্দুল মজিদ, অ্যাড.তোজাম্মেল হোসেন তোজামসহ কয়েকজন। ২০০২ সালের ৩০ আগস্ট বর্তমান প্রধানমন্ত্রী তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেতা হিসাবে সাতক্ষীরার কলারোয়ায় ধর্ষিতা মুক্তিযোদ্ধা পতœীকে দেখতে সাতক্ষীরায় আসেন। এদিন তিনি কলারোয়া হয়ে মাগুরা ফিরে যাবার পথে তার গাড়িবহর নিয়ে হামলার শিকার হন। সেখানে গুলি এবং মারপিটের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুনরুজ্জীবিত মামলার বিচারকাজ শুরু হয়েছে। এরই মধ্যে ২০ জন সাক্ষীর জবানবন্দী গ্রহন করা হয়েছে। আজও আদালতে আসামী বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য হাবিবুল ইসলাম হাবিবসহ ৫০ জন উপস্থিত ছিলেন।





@২০১৯ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । গ্রামপোস্ট২৪.কম, জিপি টোয়েন্টিফোর মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
Design BY MIM HOST